এশিয়ার প্রাচীনতম বাংলা সংবাদপত্র প্রথম প্রকাশ ১৯৩০

প্রিন্ট রেজি নং- চ ৩২

২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
১০ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
১৪ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

কদমতলী বাইপাস, ওভারব্রীজ ও কদমতলী মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের ইফতার ও দোয়া মাহফিল

Daily Jugabheri
প্রকাশিত ২৮ মার্চ, বৃহস্পতিবার, ২০২৪ ০০:৫২:৩৩
কদমতলী বাইপাস, ওভারব্রীজ ও কদমতলী মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের ইফতার ও দোয়া মাহফিল

পবিত্র রমজানুল মোবারক উপলক্ষে সিলেট জেলা অটোটেম্পু/অটোরিক্সা চালক শ্রমিক জোট রেজিঃ নং চট্টঃ ২০৯৭ এর অন্তর্ভুক্ত কদমতলী বাইপাস, ওভারব্রীজ ও কদমতলী মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।  বুধবার (২৭ মার্চ ) উপ-পরিষদের কার্যালয়ে এ ইফতার ও দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। উক্ত ইফতার ও দোয়া মাহফিলে দোয়া পরিচালনা করেন, কদমতলী পয়েন্ট জামে মসজিদের ইমাম মুফতি মজির উদ্দিন কাশেমী।  উক্ত ইফতার ও দোয়া মাহফিলে কদমতলী বাইপাস, ওভারব্রীজ ও কদমতলী মুক্তিযোদ্ধা উপ-পরিষদের প্রতিষ্টাতা চেয়ারম্যান মোঃ মুছা মিয়ার সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সিলেট সিটি কর্পোরেশনের ২৬নং ওয়ার্ডের বারবারের নির্বাচিত জননন্দিত কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র (২) মোহাম্মদ তৌফিক বকস্ লিপন, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, দক্ষিণ সুরমা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আবুল হোসেন, সিলেট জেলা অটোটেম্পু/অটোরিক্সা চালক শ্রমিক জোট রেজিঃ নং- চট্টঃ ২০৯৭ এর কার্যকরী সদস্য মোঃ সবুজ মিয়া। ইফতার ও দোয়া মাহফিলে আল্লাহর রহমত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।  এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন, কাদির মিয়া, রিয়াদ, রিপন, ইমন, মুক্তার, মোঃ ইসহাক মিয়া, ইসরাইল, সুহেল, আকবর, হাসান, আকমল, হারুন, সৌরভ, রুবেল, জাবেদ, হেকিম, ফারুক, সাবলু, লিটন ও শ্রমিক নেতৃবৃন্দসহ আরো অনেকে উপস্থিত ছিলেন।  ইফতার ও দোয়া মাহফিলে মহান রাব্বুল আলামিনের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করে আগত সকল আমন্ত্রিত অতিথিকে স্বাগত জানিয়ে কাউন্সিলর ও প্যানেল মেয়র মোহাম্মদ তৌফিক বকস্ লিপন বলেন, “মহান সৃষ্টিকর্তার সন্তুষ্টির প্রত্যাশায় আমরা মুসলমানরা এক মাস ধরে রোজা পালন করি, যার মূল দর্শন হলো আত্মসমর্পণ। ধৈর্য, সংযম, আত্মনিয়ন্ত্রণ, আনুগত্য এবং আত্মশুদ্ধির শিক্ষায় দীক্ষিত হয়ে পারস্পরিক শ্রদ্ধায় সৌহার্দ্য, শান্তি, সমৃদ্ধি এবং সহিষ্ণুতা বৃদ্ধি পাবে। ফলে সৃষ্টির সেরা জীব হিসেবে মানুষের মধ্যে মানবিক মূল্যবোধের প্রসার হবে”।  তিনি আরো বলেন, বর্তমান সরকার শ্রমিক বান্ধব সরকার। এ সরকার শ্রমিকদের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছে। “স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর প্রত্যাশিত জনগণের সেবক হিসেবে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর রূপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে আমরা মুক্তিযুদ্ধ ও দেশপ্রেমের চেতনায় উদ্বুদ্ধ হয়ে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছি”। “আপনাদের উপস্থিতি আমাদের অনুপ্রাণিত করবে এবং উৎসাহিত করবে”। সুমহান সেবার ব্রত নিয়ে সর্বোচ্চ পেশাদারত্ব এবং নিষ্ঠা দিয়ে সম্মানিত নগরবাসীর পাশে থাকার প্রত্যাশা ব্যক্ত করেন তিনি। বিজ্ঞপ্তি

সংবাদটি ভালো লাগলে স্যোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন