এশিয়ার প্রাচীনতম বাংলা সংবাদপত্র প্রথম প্রকাশ ১৯৩০

প্রিন্ট রেজি নং- চ ৩২

২৩শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
১০ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
১৪ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

জয়সওয়াল-জাদেজার নৈপুন্যে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে রেকর্ড জয় ভারতের

Daily Jugabheri
প্রকাশিত ১৯ ফেব্রুয়ারি, সোমবার, ২০২৪ ০৩:৩২:০২
জয়সওয়াল-জাদেজার নৈপুন্যে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে রেকর্ড জয় ভারতের

যুগভেরী ডেস্ক ::: ওপেনার যশ^সী জয়সওয়ালের ডাবল সেঞ্চুরি এবং স্পিনার রবীন্দ্র জাদেজার বোলিং নৈপুন্যে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে রেকর্ড জয়ের নজির গড়লো স্বাগতিক ভারতীয় ক্রিকেট দল। সিরিজের তৃতীয় টেস্টের চতুর্থ দিন ভারত ৪৩৪ রানের বিশাল ব্যবধানে হারিয়ে ইংলিশদের। নিজেদের টেস্ট ইতিহাসে রান বিবেচনায় সবচেয়ে বড় জয় পেলো ভারত। এই জয়ে পাঁচ ম্যাচ সিরিজে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে গেল ভারত।
রাজকাটো টেস্টের তৃতীয় দিন শেষে ৮ উইকেট হাতে নিয়ে ৩২২ রানে এগিয়ে ছিলো ভারত। এর আগে প্রথম ইনিংসে ভারতের ৪৪৫ রানের জবাবে ৩১৯ রানে অলআউট হয় ইংল্যান্ড। । ১২৬ রানের লিড নিয়ে দ্বিতীয় ইনিংসে তৃতীয় দিন শেষে ২ উইকেটে ১৯৬ রান করেছিলো ভারত। সপ্তম টেস্টে তৃতীয় সেঞ্চুরি তুলে ১০৪ রান করে আহত অবসর নিয়েছিলেন জয়সওয়াল। শুভমান গিল ৬৫ ও কুলদীপ যাদব ৩ রানে দিন শেষ করেছিলেন।
আজ, চতুর্থ দিন ৯১ রানে রান আউট হন গিল। ১৫১ বল খেলে ৯টি চার ও ২টি ছক্কা মারেন তিনি। ২৭ রান করে ইংল্যান্ডের স্পিনার রেহান আহমেদের শিকার হন কুলদীপ।
গিলের আউটের পর ক্রিজে আসেন জয়সওয়াল। অভিষিক্ত সরফরাজ খানকে নিয়ে ইংল্যান্ডের বোলারদের বিপক্ষে মারমুখী ব্যাটিংয়ে অবলীলায় দলের রানের চাকা ঘুড়িয়েছেন জয়সওয়াল। দ্বিতীয় সেশনে ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় ডাবল সেঞ্চুরি পূর্ন করেন এই বাঁ-হাতি ব্যাটার। এর আগে বিশাখাপতœমে এই সিরিজের প্রথম টেস্টে ক্যারিয়ারের প্রথম ডাবল-সেঞ্চুরির ইনিংসে ২০৯ রান করেছিলেন জয়সওয়াল।
জয়সওয়ালের ডাবল-সেঞ্চুরির সাথে অভিষেক টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসেও হাফ-সেঞ্চুরির দেখা পান সরফরাজ। পঞ্চম উইকেটে জয়সওয়াল ও সরফরাজের ১৫৮ বলে ১৭২ রানের অবিচ্ছিন্ন জুটিতে ৪ উইকেটে ৪৩০ রানে দ্বিতীয় ইনিংস ঘোষনা করে ভারত। এতে জয়ের জন্য ৫৫৭ রানের পাহাড় সমান টার্গেট পায় ইংল্যান্ড।
সরফরাজ ৬টি চার ও ৩টি ছক্কায় ৭২ বলে ৬৮ এবং ১৪টি চার ও ১২টি ছক্কায় ২৩৬ বলে ২১৪ রানে অপরাজিত থাকেন জয়সওয়াল। ভারতের পক্ষে টেস্টে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ ছক্কার নয়া রেকর্ড গড়েন তিনি। এতদিন এই রেকর্ডের মালিক ছিলেন নবোজাত সিং সিধু। ১৯৯৪ সালে লক্ষেèৗতে শ্রীলংকার বিপক্ষে ৮টি ছক্কা মেরেছিলেন সিধু।
সিধুর রেকর্ড দখলে নিয়ে টেস্ট ইতিহাসে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ ১২ ছক্কায় পাকিস্তানের সাবেক অধিনায়ক ওয়াসিম আকরামের রেকর্ড স্পর্শ করেন জয়সওয়াল। ১৯৯৬ সালে শেখুপুরা স্টেডিয়ামে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টেস্টের প্রথম ইনিংসে ৩৬৩ বলে অপরাজিত ২৫৭ রানের ইনিংস খেলার পথে ২২টি চার ও ১২টি ছক্কা মেরেছিলেন আকরাম।
৫৫৭ রানের বিশাল টার্গেটে খেলতে নেমে ভারতের তিন স্পিনার জাদেজা-কুলদীপ ও অশি^নের ঘূর্ণিতে পড়ে খেই হারিয়ে ফেলে ইংল্যান্ড। প্রতিপক্ষের মিডল অর্ডারকে ধসিয়ে দেন জাদেজা ও কুলদীপ। তাদের বোলিং তোপে ৫০ রানে সপ্তম উইকেট হারিয়ে দ্রুত ইনিংস শেষ হবার মুখে পড়ে ইংল্যান্ড। কিন্তু শেষ দিকে উইকেটরক্ষক বেন ফোকস ১৬, টম হার্টলি ও দশ নম্বর ব্যাটার মার্ক উড ১৫ বলে ৩৩ রান তুলে ইংল্যন্ডকে ১শর নীচে গুটিয়ে যাবার লজ্জা থেকে রক্ষা করেন। ১২২ রানে শেষ হয় ইংল্যান্ডের দ্বিতীয় ইনিংস।
জাদেজা ৪১ রানে ৫টি, কুলদীপ ২টি ও অশি^ন ১টি উইকেট নেন। টেস্ট ক্যারিয়ারে এই নিয়ে ১৩তমবারের মত ইনিংসে ৫ উইকেট নেন ম্যাচ সেরা নির্বাচিত হওয়া জাদেজা। প্রথম ইনিংসে ১১২ রানের পাশাপাশি ২ উইকেটও নেন জাদেজা।
ইংল্যান্ডের বিপক্ষে এই জয়ে বিশ^ টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের পয়েন্ট টেবিলে অস্ট্রেলিয়াকে সরিয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠলো ভারত। তাদের সংগ্রহ ৭ ম্যাচে ৫৯ দশমিক ৫২ শতাংশ পয়েন্ট। ৪ ম্যাচে ৭৫ শতাংশ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে নিউজিল্যান্ড। ১০ ম্যাচে ৫৫ শতাংশ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তৃতীয়স্থানে নেমে গেল অস্ট্রেলিয়া। ২ ম্যাচে ৫০ শতাংশ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের চতুর্থস্থানে থাকলো বাংলাদেশ।
আগামী ২৩ ফেব্রুয়ারি থেকে রাঁচিতে চতুর্থ টেস্ট খেলতে নামবে ভারত ও ইংল্যান্ড।

সংবাদটি ভালো লাগলে স্যোশাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন